ইসলাম ও জীবন

পরিবারের তত্ত্বাবধানে সাঈদীর চিকিৎসা গ্রহণের সুযোগ দেওয়ার দাবি জামায়াতের

  প্রতিনিধি ১৪ আগস্ট ২০২৩ , ২:১৫:২৭ প্রিন্ট সংস্করণ

অনলাইন ডেস্কঃ

দলের নায়েবে আমির ও সাবেক সংসদ সদস্য দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর মুক্তি দাবি করেছে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী। একই সঙ্গে তার জন্য দেশবাসী ও প্রবাসী বাঙালিদের কাছে দোয়ার আহ্বান জানিয়েছেন দলের ভারপ্রাপ্ত আমির অধ্যাপক মুজিবুর রহমান।

সোমবার (১৪ আগস্ট) জামায়াতের কেন্দ্রীয় প্রচার সেক্রেটারি মতিউর রহমান আকন্দ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ দাবি জানায় দলটি।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জামায়াতের আমির মুজিবুর রহমান বলেন, দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর অসুস্থতার খবরে আমি গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করছি।

তার অসুস্থতার খবরে তার পরিবার-পরিজন, জামায়াতে ইসলামীর নেতাকর্মীসহ গোটা জাতি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীকে অবিলম্বে মুক্তি দিয়ে তার পরিবারের তত্ত্বাবধানে মুক্ত পরিবেশে চিকিৎসা গ্রহণের সুযোগ দেওয়ার দাবি জানাচ্ছি। তার রোগমুক্তির জন্য দোয়া করার উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী রবিবার (১৩ আগস্ট) বিকেলে হার্টে প্রচণ্ড ব্যথা অনুভব করেন।

প্রথমে তাকে গাজীপুরের একটি হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরিস্থিতির অবনতি হওয়ার কারণে রাতেই তাকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

প্রায় ৮৪ বছর বয়সী সাঈদীর হার্টে পাঁচটি রিং পরানো হয়েছে। তিনি দীর্ঘদিন যাবৎ উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিস রোগে ভুগছেন।

এ ছাড়াও তিনি পায়ের গিরায় ব্যথাসহ বার্ধক্যজনিত নানা জটিল রোগে আক্রান্ত। অন্যের সাহায্য ছাড়া একা হাঁটাচলা, ওঠা-বসা কোনোটাই করতে পারেন না। এমতাবস্থায় মানবিক কারণে তাকে মুক্তি দিয়ে নিজ পরিবারের তত্ত্বাবধানে মুক্ত পরিবেশে দেশে অথবা বিদেশে তাকে উন্নত চিকিৎসা গ্রহণের সুযোগ দেওয়া উচিত।

২০১০ সালের ২৯ জুন রাজধানীর শাহীনবাগের বাসা থেকে গ্রেপ্তারের পর থেকেই কারাগারে রয়েছেন জামায়াতে ইসলামীর এই সাবেক নায়েবে আমির।  

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল হত্যা, ধর্ষণ, লুটপাট, নির্যাতন ও ধর্মান্তরে বাধ্য করার মতো মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ২০১৩ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি সাঈদীর মৃত্যুদণ্ডের রায় দেন।

আরও খবর

Sponsered content