ঝড় ও বৃষ্টি

মিয়ানমারে চলছে প্রবল ঘূর্ণিঝড় মোখার তাণ্ডব

  প্রতিনিধি ১৪ মে ২০২৩ , ২:১৩:২২ প্রিন্ট সংস্করণ

অনলাইন ডেস্ক:

বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের সিত্তওয়ে উপকূলে আঘাত হেনেছে অতিপ্রবল ঘূর্ণিঝড় মোখা। স্থানীয় সময় রবিবার দুপুর ১টা ৩০-এর দিকে উপকূলে আঘাত হানে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়টি। মিয়ানমারের আবাহওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, আঘাত হানার সময় বাতাসের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ২২০ কিলোমিটার। এ তথ্য জানিয়েছে দেশটির গণমাধ্যম মিয়ানমার নাউ।

ঘূর্ণিঘড় থেকে বাঁচতে ঘর ছেড়েছেন লাখো মানুষ। আরাকান আর্মির এক মুখপাত্র ইরাবতিকে জানিয়েছেন, ১ লাখের বেশি মানুষকে নিরাপদে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। তাদের চিকিৎসা ও খাদ্য সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।  

মিয়ানমার নাও-এর প্রতিবেদনে জানা গেছে, ঝোড়ো বাতাসে গাছ-পালাসহ হালকা ঘর-বাড়ি উড়ে যেতে দেখা গেছে।

ইতোমধ্যে প্রবল বৃষ্টি শুরু হয়েছে রাখাইনের কয়েকটি শহরে। পানি বাড়তে থাকায় ভূমিধস ও বন্যার আশঙ্কা করছে স্থানীয় কর্তৃপক্ষ।

মোখার প্রভাবে শহরের কয়েকটি মোবাইল টাওয়ার ভেঙে পড়েছে। বিভিন্ন জায়গার বিদ্যুৎ খুঁটি ভেঙে যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ হয়ে গেছে। স্থানীয়রা জানান, হালকা ভবনগুলো ভবনগুলো ঝড়ের তাণ্ডবে কেঁপে উঠছে।

আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, তীব্র ঘূর্ণিঝড় সকাল সাড়ে ১১টায় সিত্তওয়ের প্রায় ৮০ মাইল দক্ষিণ-পশ্চিমে, মংডুর ৮৫ মাইল দক্ষিণ-দক্ষিণ-পশ্চিমে এবং রাখাইনের কিয়াকফিউ থেকে ১০০ মাইল পশ্চিমে অবস্থান করছিল।

মিয়ানমার বিষয়ক জাতিসংঘের আবাসিক ও মানবিক সমন্বয়কারী রামানাথন বালাকৃষ্ণান জানান, জাতিসংঘের সংস্থাগুলো ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত সম্প্রদায়গুলোকে সহায়তা করতে প্রস্তুত রয়েছে।

আরও খবর

Sponsered content